শুক্রবার, ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১০ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সম্পর্কের ৫০ বছর পূর্তিতে কর্মসূচির প্রস্তাব

লিবিয়া চায় দক্ষকর্মী, বাংলাদেশ জমি

লিবিয়ার জমি লিজ নিয়ে চুক্তিভিত্তিক চাষাবাদ করতে চায় বাংলাদেশ। আর লিবিয়া চায় বাংলাদেশ থেকে চিকিৎসক, নার্স, ইঞ্জিনিয়ার এবং টেকনিশিয়ান নিতে। গত রবিবার পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার

লিবিয়ার জমি লিজ নিয়ে চুক্তিভিত্তিক চাষাবাদ করতে চায় বাংলাদেশ। আর লিবিয়া চায় বাংলাদেশ থেকে চিকিৎসক, নার্স, ইঞ্জিনিয়ার এবং টেকনিশিয়ান নিতে। গত রবিবার পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলমের সঙ্গে ঢাকায় নিযুক্ত লিবিয়ার নতুন রাষ্ট্রদূত আব্দুল মুতালিব সুলিমান সাক্ষাৎ করলে এলে তিনি প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

বর্তমান বৈশ্বিক সংকটের প্রেক্ষাপটে খাদ্য নিরাপত্তার ক্ষেত্রে দুই দেশের মধ্যে সহযোগিতা প্রতিষ্ঠার প্রস্তাব দেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম। তিনি লিবিয়ার রাষ্ট্রদূতকে জানান, বাংলাদেশ বৈধ অভিবাসন সমর্থন করে। অবৈধ অভিবাসন রোধে লিবিয়ার সঙ্গে সহযোগিতা বাড়াতে চায়। লিবিয়ায় কর্মরত বাংলাদেশি শ্রমিকদের অব্যাহত সহায়তার জন্য দেশটির সরকারকে ধন্যবাদ জানান।

শাহরিয়ার আলম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ অসামান্য অগ্রগতি অর্জন করেছে। বিশ্বের দেশগুলোর সঙ্গে তার সম্পর্ক আরও উন্নত করতে চায়। বাংলাদেশ ও লিবিয়ার মধ্যকার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক ঐতিহ্যবাহী ও বন্ধুত্বপূর্ণ। দুই দেশের জনগণের সুবিধার্থে ভবিষ্যতে সহযোগিতা আরও বাড়ানো হবে। এ সময় প্রতিমন্ত্রী বাংলাদেশ ও লিবিয়ার ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে দু’দেশে যৌথভাবে বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নেওয়ার প্রস্তাব দেন।

লিবিয়ার রাষ্ট্রদূত দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক বাড়াতে একটি যৌথ কমিশন গঠনের প্রস্তাব করেন। তিনি লিবিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করার অনুরোধ করেন।

লিবিয়ার রাষ্ট্রদূত জানান, লিবিয়ায় বাংলাদেশি ডাক্তার, নার্স, টেকনিশিয়ান এবং ইঞ্জিনিয়ারদের নিয়োগ দিতে চায়। এজন্য একটি যৌথ কমিশন গঠন করা যেতে পারে। যাতে করে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের গুরুত্বপূর্ণ খাতগুলো পর্যালোচনা করা যায়।

আনন্দবাজার/শহক

Print Friendly, PDF & Email
আরও পড়ুনঃ  মোহাম্মদপুরে ৬৮ ওয়াকিটকি জব্দ

সংবাদটি শেয়ার করুন