বৃহস্পতিবার, ৩০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১৬ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দেশে ২০ অঞ্চলে নদীবন্দরে সতর্কতা জারি

দেশে ২০ অঞ্চলে নদীবন্দরে সতর্কতা জারি

দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকায় দেশের ২০টি অঞ্চলের ওপর দিয়ে বয়ে যাওয়া নদীবন্দরগুলোকে এক নম্বর সতর্কতা সংকেত জারি করা হয়েছে। আবহাওয়া অফিস সোমবার (৩ অক্টোবর) এমন পূর্বাভাস দিয়েছে।

আবহাওয়াবিদ মো. মনোয়ার হোসেনের তথ্যমতে- রাজশাহী, পাবনা, রংপুর, দিনাজপুর, বগুড়া, টাংগাইল, ময়মনসিংহ, যশোর, কুষ্টিয়া, ঢাকা, ফরিদপুর, মাদারীপুর, খুলনা, বরিশাল, পটুয়াখালী, নোয়াখালী, কুমিল্লা, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার এবং সিলেট অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫-৬০ কি.মি. বেগে অস্থায়ীভাবে দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি,বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। ঐসব এলাকার নদীবন্দরগুলোকে ১ নম্বর সতর্কতা সংকেত অনুসরণ করতে বলা হয়েছে।

একই সময় আরেক পূর্বাভাসে বলা হয়েছে- উত্তর বঙ্গোপসাগর এবং তৎসংলগ্ন মধ্য-বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থানরত লঘুচাপটি বর্তমানে উত্তরপশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন পশ্চিম মধ্য বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থান করছে।

মৌসুমী বায়ুর অক্ষ পূর্ব উত্তর প্রদেশ, বিহার, পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের মধ্যাঞ্চল হয়ে আসাম পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। মৌসুমী বায়ু বাংলাদেশের উপর মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরের অন্যত্র মাঝারি অবস্থায় রয়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে আগামী মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত রংপুর, রাজশাহী, ঢাকা, ময়মনসিংহ, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়া ও বিজলি চমকানোসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরণের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেইসঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরণের ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে।

সারাদেশে দিনের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকবে।

আরও পড়ুনঃ  গণমানুষের অর্থনৈতিক মুক্তির অন্যতম মাধ্যম হবে পর্যটন

এদিকে সোমবার সকালের আগে পর‌্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় দেশে সর্বোচ্চ ১৩৪ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে মাইজদীকোর্টে। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড হয়েছে ডিমলায়। ঢাকায় বৃষ্টিপাত হয়েছে ১২ মিলিমিটার আর সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

আনন্দবাজার/কআ

Print Friendly, PDF & Email

সংবাদটি শেয়ার করুন