রবিবার, ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১২ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

গরুচোর আতঙ্কে কৃষক

গরুচোর আতঙ্কে কৃষক

শেরপুরে গরুচুরি নিয়ে আতঙ্কে রয়েছেন কৃষকরা। সম্প্রতি গরুচুরি বৃদ্ধি পাওয়ায় অনেকেই গরু পাহাড়া দিতে নির্ঘুম রাত যাপন করছেন। আবার কেউ কেউ পালাক্রমে গরু পাহাড়া দিচ্ছেন। গত শনিবার রাতে শেরপুর সদর উপজেলার চরশেরপুর টাঙ্গারিয়া পাড়ার কৃষক ক্ষুদ্র খামারি নাজির হোসেনের বিদেশী অস্ট্রেলিয়ান জাতের দুটি গাভীসহ চারটি গরু চুরি করে নিয়ে যায় চোরেরা। গরুগুলোর আনুমানিক মূল্য  প্রায় পাঁচ লাখ টাকা।

নাজির হোসেন জানান, তিনি রাত তিনটা পর্যন্ত গোয়াল ঘরে গরু পাহাড়া দিয়ে ঘরে শোবার গিয়ে শুয়ে পড়েন। এর পরপরই তার গরুগুলো চুরি হয়ে যায়। চরশেরপুর নাজিরাগাড়ায় একটি সিসি ক্যামেরায় দেখা যায় নীল রঙের একটি ট্রাকে ভোর তিনটা সাইত্রিশ মিনিটে চোরেরা গরুগুলি নিয়ে যায়। এসময় একটি মোটর সাইকেলে চোরদের যেতেও দেখা যায়। গরু চুরি হওয়ায় ওই কৃষক দিশেহারা হয়ে পড়েছেন। এর আগেও সম্প্রতি সদর উপজেলার ধাতিয়াপাড়া গ্রামের কৃষক সমেজ উদ্দিনের ছয়টি গরু একই কায়দায় চোরেরা চুরি করে নিয়ে যায়। যার আনুমানিক মূল্য ছয় লাখ টাকা।

চরশেরপুর ইউনিয়নের বালুরঘাট এলাকার জুলফিক্কার আলী জানান, আমরা পরিবারের সদস্যরা পালাক্রমে গরু পাহাড়া দেই। একজন ঘুমাই, অন্য একজন জেগে থাকি। আমরা এসব চোরদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য দাবাী জানাচ্ছি।

শেরপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বছির আহমেদ বাদল বলেন, গত রবিবার রাতে অজ্ঞাতদের আসামী করে একটি অভিযোগ দিয়েছেন কৃষক নাজির হোসেন। আমরা চুরি হওয়ার ঘটনাটি জানার সাথে সাথে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি। আমরা খোঁজ খবর নিচ্ছি চোরদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য।

Print Friendly, PDF & Email
আরও পড়ুনঃ  বিমানে সবার জন্য ৫০% মূল্য ছাড়

সংবাদটি শেয়ার করুন