মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১লা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মেহেন্দিগঞ্জের দুটি ইউনিয়নে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন নিয়ে উত্তেজনা

মেহেন্দিগঞ্জের দুটি ইউনিয়ন আলীমাবাদ ও চরগোপালপুর’র মোহনায় মোস্তফা বাজার খালে বাঁধ দিয়ে মাছ চাষ ও অবৈধভাবে বালু উত্তোলন নিয়ে উত্তেজনা।

বাঁধ এবং বালু উত্তোলনের ফলে আলীমাবাদের কাজীরহাটের খাল ভেঙ্গে হচ্ছে নদী, বিলীন হয়েছে ওই খালের উপর থাকা ব্রিজ, একাধিক বসত ভিটা, প্রায় ৩ কিলোমিটার কাচা রাস্তা, বিচ্ছিন্ন হয়েছে চরের সাথে যোগাযোগ, প্লাবিত হয়েছে ৪টি গ্রাম, পানিবন্ধি হাজারো পরিবার, মরেছে গরু ছাগল।

স্থানীয়দের দাবী বাঁধ অপসারণ ও এই অঞ্চলের অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ করার। তা না হলে অচিরেই আলীমাবাদ ইউনিয়নের মানচিত্র থেকে বিলীন হয়ে যাবে ৪টি মৌজা। ভাঙ্গন আতংকে প্রায় ৩ হাজার পরিবার।

এদিকে এ বিষয়ে প্রতিকার চেয়ে আলীমাবাদ ইউনিয়নের জনগনের পক্ষ থেকে ইউসুফ বাঘা নামের জনৈক ব্যক্তি মেহেন্দিগঞ্জ থানায় লিখিত অভিযোগ করেন। এ নিয়ে স্থানীয়দের সাথে ক্ষতিগ্রস্ত ওয়ার্ডের মেম্বারদ্বয় ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, আমরা স্থানীয় প্রশাসনের মাধ্যমে প্রতিকার না পেলে উপরস্থ কর্মকর্তাদের দ্বারস্থ হবো এবং যে কোন মূল্যে অবৈধ বালু উত্তোলন ও বাঁধ অপসারণ করা হবে।

চরগোপালপুর ইউপি চেয়ারম্যান বলেন, আমার ইউনিয়নের মোস্তফা বাজার রক্ষায় বাঁধ দেওয়া হয়েছে, তিনি আরো বলেন বাঁধের চেয়ে ওই ইউনিয়নের বেশি ক্ষতি হচ্ছে নির্বিচারে অবৈধ বালু উত্তোলনের কারনে। এ বিষয়ে মেহেন্দিগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ আবিদুর রহমান বলেন অভিযোগের বিষয়ে সততা পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পীযুষ চন্দ্র দে বলেন, অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরও পড়ুনঃ  লকডাউন হলো মাদারীপুরের শিবচর

আনন্দবাজার/শাহী

Print Friendly, PDF & Email

সংবাদটি শেয়ার করুন