শুক্রবার, ১২ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ২৮শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঢাকা-পটুয়াখালি মহাসড়ক অবরোধ, শিক্ষার্থীদের তিন দফা দাবি

ঢাকা-পটুয়াখালি মহাসড়ক অবরোধ করেছেন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় (ববি) সাধারণ শিক্ষার্থীরা। আজ বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে তারা সড়ক অবরোধ করে রেখেছেন। এবং তারা তিন দফা দাবি উত্থাপন করেছেন। এতে বরিশালের সাথে ভোলা,পটুয়াখালী, বরগুনা, ঝালকাঠি যোগাযোগ ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে। ভোগান্তিতে পড়েছেন যাত্রীরা।

মঙ্গলবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) দিবাগত গভীর রাতে নগরীর রূপাতলি শিক্ষার্থীদের মেসে গিয়ে হামলা করে স্থানীয় দূর্বৃত্তরা। এতে ১৭ জন শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়ে শের- ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা জানান, দাবি মানা না তারা অনির্দিষ্টকালের জন্য অবরোধ কর্মষূচি চালিয়ে যাবেন বলে ঘোষণা দিয়েছেন।

ঢাকা-পটুয়াখালি মহাসড়ক অবরোধ, শিক্ষার্থীদের তিন দফা দাবি
ঢাকা-পটুয়াখালি মহাসড়ক অবরোধ, শিক্ষার্থীদের তিন দফা দাবি

শিক্ষার্থীদের তিন দফা দাবির মধ্যে রয়েছে- বর্বরোচিত হামলার সঙ্গে জড়িত সকলকে অনতিবিলম্বে গ্রেফতার করতে হবে; বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের সকল দায় দায়িত্ব নিতে হবে ও মামলার ব্যবভার বহন করতে হবে এবং ভবিষ্যতে এমন কোন ঘটনা যদি ঘটে তবে তার সম্পূর্ণ দায়ভার বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে বহন করতে হবে।

এদিকে সকাল ১১টার দিকে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সাথে আলোচনায় বসে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. ছাদেকুল আরেফিন, রেজিস্ট্রার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) প্রফেসর ড. মুহসিন উদ্দীনসহ, শিক্ষক সমিতির সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক, সহকারী প্রক্টররা উপস্থিত ছিলেন।

এসময় উপাচার্যকে হামলার সমস্ত বিবরণ তুলে ধরা হলে তিনি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিয়ে অবরোধ প্রত্যাহার করার আহবান জানান। তবে শিক্ষার্থী তা না মেনে আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার অনড় অবস্থানে রয়েছেন। এদিকে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা একটি বাসেও আগুন দিয়েছেন।

আরও পড়ুনঃ  ৬ ঘণ্টা পর শাহবাগ ছাড়লেন শিক্ষার্থীরা, নতুন কর্মসূচি ঘোষণা

আনন্দবাজার/শাহী/সাব্বির

Print Friendly, PDF & Email

সংবাদটি শেয়ার করুন