সরকার ১৩ লাখ মেট্রিক টন জ্বালানি তেল কিনবে 

চলতি ২০২১ সালে জানুয়ারি থেকে জুন প্রান্তিকের জন্য ১২ লাখ ৮৫ হাজার মেট্রিক টন পরিশোধিত জ্বালানি তেল কিনবে সরকার। এতে মোট ব্যয় হবে ৪ হাজার ৩৮৪ কোটি ৫৮ লাখ টাকা। বুধবার (৬ জানুয়ারি) দুপুরে অনলাইনে সিঙ্গাপুরে অবস্থানরত অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে তেল ক্রয়ের প্রস্তাবসহ মোট ৯ টি ক্রয় প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়৷

বৈঠক শেষে ভার্চ্যুয়াল সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব আবু সালেহ মোস্তফা কামাল সাংবাদিকদের জানান, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগের আওতায় বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম করপোরেশন ২০২১ সালের জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর সময়ে ২৫ লাখ ৫০ হাজার মেট্রিক টন পরিশোধিত জ্বালানির পরিমাণ এবং জানুয়ারি থেকে জুন ২০২১ সময়ের জন্য ১২ লাখ ৮৫ হাজার মেট্রিক টন পরিশোধিত জ্বালানি তেল ৪ হাজার ৩৮৪ কোটি ৫৮ লাখ টাকায় ক্রয়ের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

অতিরিক্ত সচিব আবু সালেহ মোস্তফা কামাল বলেন, শিল্প মন্ত্রণালয়ের অধীন বাংলাদেশ কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিজ করপোরেশন (বিসিআইসি) রাষ্ট্রীয় চুক্তির মাধ্যমে মুনতাজা কাতার থেকে দশম লটে (শেষ লট) ২৫ হাজার মেট্টিক টন বাল্ক গ্র্যানুলার (অপশনাল) ইউরিয়া সার ৫৫ কোটি ৬৯ লাখ ৫৩ হাজার ৪৩৭ টাকায় ক্রয়ের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

শিল্প মন্ত্রণালয়ের অপর এক প্রস্তাবে বিসিআইসি রাষ্ট্রীয় পর্যায়ে চুক্তির মাধ্যমে সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে ২৫ হাজার মেট্টিক টন বাল্ক গ্র্যানুলার ইউরিয়া সার ৫৬ কোটি ৭৫ লাখ ৭২ হাজার ১৮৭ টাকায় ক্রয়ের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

বৈঠকে অনুমোদিত অন্যান্য প্রস্তাবগুলো হলো:

নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের অধীন ‘চট্টগ্রাম বন্দরের বিভিন্ন ইয়ার্ড এবং টার্মিনালের জন্য প্রয়োজনীয় ইক্যুইপমেন্ট সংগ্রহ’ প্রকল্পের আওতায় ৪টি কি গ্যান্ট্রি ক্রেন ক্রয়ের অনুমোদন। চায়নার সাংহাই জানেহুয়া হেভি ইন্ডাস্ট্রিস কোম্পানি লিমিটেডের কাছ থেকে ২৪৩ কোটি ৫৭ লাখ ৭৭ হাজার টাকায় এ ক্রেনগুলো কেনা হবে।

নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের অপর এক প্রস্তাবে, ‘চট্টগ্রাম বন্দরের বিভিন্ন ইয়ার্ড এবং টার্মিনালের জন্য প্রয়োজনীয় ইক্যুইপমেন্ট সংগ্রহ’ প্রকল্পের আওতায় ১১টি রাবার টায়ার্ড গ্যান্ট্রি ক্রেন ক্রয় প্রস্তাবের অনুমোদন। এতে ব্যয় ধরা হয়েছে ১৩০ কোটি ১৭ লাখ ৩৭ হাজার ৫৬০ টাকা। এর মধ্যে সংযুক্ত আরব আমিরাতের ট্রান্স গল্ফ পোর্ট ক্রেনস এলএলসির কাছ থেকে ৫৯ কোটি ৩৪ লাখ ৭২০ টাকায় ৫ রাবার টায়ার্ড গ্যান্ট্রি ক্রেন এবং চায়নার সাংহাই জানেহুয়া হেভি ইন্ডাস্ট্রিস কোম্পানি লিমিটেডের কাছ থেকে ৭০ কোটি ৮৩ লাখ ৩৬ হাজার ৮৪০ টাকায় ৬টি রাবার টায়ার্ড গ্যান্ট্রি ক্রেন কেনা হবে।

আনন্দবাজার/শহক

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *