ডিসেম্বর ১, ২০২১

রাজধানীতে সীমিত আকারে চলছে গণপরিবহণ, ভাড়া তিনগুণের বেশি

ডিজেলের দাম বাড়ার প্রতিবাদে সারা দেশে তৃতীয় দিনের মতো চলছে পরিবহণ ধর্মঘট। তবে রাজধানীতে সীমিত আকারে চলছে গণপরিবহণ। দুই থেকে তিনগুণ বাড়তি ভাড়া গুণতে হচ্ছে সাধারণ মানুষের।

ডিজেলের দাম বাড়ার প্রতিবাদে সারা দেশে তৃতীয় দিনের মতো চলছে পরিবহণ ধর্মঘট। তবে রাজধানীতে সীমিত আকারে চলছে গণপরিবহণ। দুই থেকে তিনগুণ বাড়তি ভাড়া গুণতে হচ্ছে সাধারণ মানুষের।

গণপরিবহণ বন্ধ থাকলেও, থেমে নেই জরুরি কাজ। তাই পায়ে হেঁটেই গন্তব্যের পথে মানুষ। তবে রাজধানীতে স্বল্প পরিসরে চলছে গণপরিবহণ।

চালক ও সহকারীরা বলছেন, মালিকদের ধর্মঘট চললেও পেটের দায়ে তারা গাড়ি চালাচ্ছেন। আর যাত্রীদের অভিযোগ, সীমিত আকারে গণপরিবহণ চললেও ভাড়া দ্বিগুণ-তিনগুণের বেশি রাখা হচ্ছে।

আজ রবিবার স্বাভাবিক কর্মদিবস হওয়ায় সরকারি-বেসরকারি সব প্রতিষ্ঠান খোলা। এসব প্রতিষ্ঠানের কর্মীরা অফিসে যেতে নির্ধারিত পরিবহণ না পেয়ে পড়েছেন বিপাকে। রাজধানীতে বিআরটিসি বাস চললেও, তাতে উঠতে রীতিমতো যুদ্ধ করতে হচ্ছে। বাধ্য হয়ে রিকশা, সিএনজি বা পায়ে হেঁটেই গন্তব্যে ছুটছেন অনেকে। সিএনজিচালিত অটোরিকশা আর রিকশায় ভাড়া গুণতে হচ্ছে কয়েকগুণ।

সরকারের পক্ষ থেকে পরিবহণ মালিকদের সঙ্গে সমঝোতার চেষ্টা চলছে। আজ ভাড়া পুনর্নির্ধারণে বিআরটিএ’র কমিটির বৈঠক হবার কথা।

এদিকে, গণপরিবহণ মালিকরা ভাড়া সমন্বয়ের দাবি জানালেও জ্বালানির বাড়তি মূল্য প্রত্যাহারের দাবিতে অটল পণ্যবাহী পরিবহণ মালিকরা। বাংলাদেশ ট্রাক কাভার্ড ভ্যান মালিক সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হোসাইন আহমেদ মজুমদার বলেন, ডিজেলের দাম বাড়ায় ভাড়াসহ পণ্যে অতিরিক্ত দামের বোঝা জনগনকেই বহন করতে হবে। তাই জনগনের স্বার্থ বিবেচনা করে ডিজেলের বাড়তি মূল্য প্রত্যাহার করতে হবে।

এদিকে, চট্টগ্রাম মহানগরীতে আজ সকাল ৬টা থেকে গণ পরিবহণ চলাচলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে মেট্রোপলিটন পরিবহণ মালিক গ্রুপ। সংগঠনের সভাপতি বেলায়েত হোসেন বেলাল জানান, জণগণকে জিম্মি করে রাজনৈতিকভাবে ফায়দা লুটের চেষ্টা করছে একটি পক্ষ। তারা সড়ক বন্ধ করে সিএনজি ও ব্যক্তিগত গাড়ি চলাচলে বাধা দিচ্ছে। জনগণের দুর্ভোগ বিবেচনা করে ধর্মঘট প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তের কথা জানান তিনি।

আরও পড়ুনঃ  ২৯১ কোটি ডলারের রফতানি আদেশ বাতিল

আনন্দবাজার/শহক

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আজকের পত্রিকা
ই-পেপার
শেয়ার বাজার
পন্য বাজার