মেহেন্দিগঞ্জের ইউএনওর নাম্বার ক্লোন করে চাঁদা দাবির ঘটনায় জিডি

মেহেন্দিগঞ্জের ইউএনওর নাম্বার ক্লোন করে চাঁদা দাবির ঘটনায় জিডি

মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহাদাত হোসেন মাসুদ’র মুঠোফোনের নাম্বার ক্লোন করে এক জনপ্রতিনিধির নিকট চাঁদা দাবি করছে একটি প্রতারক চক্র। রোববার (১১ জুলাই) ৪ টা ১০ মিনিটে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিসিয়াল সিম নাম্বার ক্লোন করার বিষয়টি জানানো হয়।

জানা গেছে, ইউএনও’র মোবাইল ফোন ক্লোন করে শ্রীপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হারুন অর রশিদ মোল্লার কাছ থেকে ভাঙ্গা রাস্তা মেরামত করার বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে বলে টাকা দাবি করেন। বিষয়টি চেয়ারম্যান’র সন্দেহ হলে তিনি মোবাইলের লাইন বিচ্ছিন্ন করে একই উপজেলার পিআইওর মোবাইল নাম্বারে কল দিয়ে নিশ্চিত হউন যে ইউএনও’র মোবাইল নাম্বার ক্লোন করে টাকা চাওয়া হচ্ছে। ওই দিন ইউএনও বরিশাল জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে একটি মিটিংয়ে উপস্থিত ছিলেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহাদাত হোসেন বলেন, ঘটনা সত্য। আমি এ ব্যাপারে থানায় সাধারণ ডায়রি করেছি। চিহ্নিত করতে পারলে প্রতারক চক্রের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিবো।

উল্লেখ্য ইউএনও লোভ লালসার উর্ধ্বে উঠে নিজ প্রতিষ্ঠানকে গড়ে তোলেন জনবান্ধব ও বিপদগ্রস্ত মানুষের আশ্রয়স্থল। এই উপজেলায় তার দায়িত্বকাল স্বল্পসময়। তার সততা ও কর্মদক্ষতায় পাল্টে গেছে উপজেলা পরিষদের প্রশাসনিক কার্যক্রম ও সার্বিক চিত্র। সরকারি-বেসরকারি প্রতিটি দপ্তরের কর্মকান্ডে ফিরে এসেছে গতিশীলতা ও স্বচ্ছতা। কমেছে জনভোগান্তি আর বৃদ্ধি পেয়েছে জনসেবার মান। উপজেলাকে একটি উন্নত আধুনিক জনপদ হিসেবে গড়ে তুলতে নিরালসভাবে কাজ করছেন তিনি। জনবান্ধব এই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কর্মকাণ্ডে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন উপজেলার সাধারণ মানুষ, গণমাধ্যমকর্মী ও সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ।

আনন্দবাজার/শহক

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *