নভেম্বর ২৮, ২০২১

বাড়িতে বাবার লাশ রেখে পরীক্ষার হলে সিনথিয়া

অধিকাংশ শিক্ষার্থীই অভিভাবক নিয়ে এসেছে পরীক্ষা কেন্দ্রে। তবে ব্যতিক্রম ছিল জনতা আদর্শ বিদ্যাপীঠের বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী সিনথিয়া কবির। পরীক্ষায় অংশ নিয়ে সে এক হাতে চোখ মুছে চলেছে আর অন্য হাতে কলম চালাচ্ছে পরীক্ষার খাতায়। মাঝে মাঝেই ফুঁপিয়ে কেঁদে উঠছে। ঘটনাটি ঘটেছে নরসিংদীর ঘোড়াশাল ডা. নজরুল বিন নূর মহসিন বালিকা বিদ্যালয় ও কলেজ পরীক্ষাকেন্দ্রে।

ঘোড়াশাল পৌর এলাকার পলাশ কুটিরপাড়া মহল্লার হুমায়ুন কবিরের (৪৮) মেয়ে সিনথিয়া। আজ রবিবার সকালে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে মারা যান তার বাবা হুমায়ুন কবির। বাবার লাশ বাড়িতে রেখেই পরীক্ষায় অংশ নেয় সিনথিয়া।

সিনথিয়ার সহপাঠীরা জানিয়েছে, পরীক্ষা দিতে গিয়ে বাবার শোকে পুরো সময়ই কেঁদেছে আর লিখেছে সিনথিয়া। এ দৃশ্য দেখে পুরো কেন্দ্রেই নেমে আসে শোকের ছায়া।

সিনথিয়ার বাবা মৃত হুমায়ুন কবিরের জানাজা দুপুর আড়াইটার দিকে স্থানীয় কো-অপারেটিভ স্কুল মাঠে অনুষ্ঠিত হয়। এরপরে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।

এ ব্যাপারে ঘোড়াশাল ডা. নজরুল বিন নূর মহসিন বালিকা বিদ্যালয় ও কলেজের অধ্যক্ষ এবং পরীক্ষাকেন্দ্রের কেন্দ্রসচিব রিনা নাসরিন বলেন, পরীক্ষার্থী সিনথিয়া কবিরের বাবার মৃত্যুর বিষয়টি আমরা অবগত হয়েছি। তার জন্য কোনো বিশেষ ব্যবস্থায় পরীক্ষা নেওয়া হয়নি। সে সবার সঙ্গেই পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে। ঘটনাটি খুবই হৃদয়বিদারক।

আনন্দবাজার/ টি এস পি

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আজকের পত্রিকা
ই-পেপার
শেয়ার বাজার
পন্য বাজার