বছরে ৫ বিলিয়ন ডলারের বেশি চামড়া রফতানি করা সম্ভব

সক্ষমতা পুরোপুরি কাজে লাগাতে পারলে বছরে ৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বেশি চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য রফতানি করা সম্ভব বলে জানিয়েছেন বাণিজ্য সচিব মো. জাফর উদ্দীন। বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর হোটেলের এক্সপোর্ট কম্পিটিটিভনেস ফর জবস (ইসিফোরজে) প্রকল্পের আওতায় চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য খাতের জন্য অনুষ্ঠিত ‘লিংকেজ ওয়ার্কশপ অন লেদার সেক্টর’ শীর্ষক ওয়ার্কশপের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সচিব এ কথা বলেন।

জাফর উদ্দীন বলেন, ‘চামড়া বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় খাত। আমাদের কাঁচামাল ও দক্ষ জনশক্তি রয়েছে। বিভিন্ন দেশে চামড়া ও চামড়াজাত পণ্যের বিপুল চাহিদা রয়েছে। আমাদের সক্ষমতা পুরোপুরি কাজে লাগাতে পারলে বছরে ৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বেশি চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য রফতানি করা সম্ভব। বাণিজ্য মন্ত্রণালয় দেশের চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য, হালকা প্রকৌশল, ফুটওয়্যার এবং প্লাস্টিক খাতের রফতানি বৃদ্ধির জন্য ইসিফোরজে নামক একটি প্রকল্প হাতে নিয়েছে।’

বাণিজ্য সচিব বলেন, ‘এ শিল্পের সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে দক্ষ করে গড়ে তোলার জন্য কাজ করা হচ্ছে। এ সকল সেক্টরে বিপুল কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে এবং রফতানি বাড়বে।’

তিনি আরও বলেন, ‘বাংলাদেশ এলডিসি থেকে বেরিয়ে উন্নয়নশীল দেশে পরিণত হচ্ছে। এর ফলে, বাণিজ্য ক্ষেত্রে বাংলাদেশকে বড় ধরনের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হবে, এ জন্য প্রস্তুতি প্রয়োজন। রফতানি বাণিজ্যে দক্ষতা বাড়ানোর বিকল্প নেই। রফতানি পণ্য সংখ্যা বৃদ্ধির পাশাপাশি আন্তর্জাতিক বাজার সম্প্রসারণ করতে হবে। এ জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিকতার সাথে কাজ করতে হবে। সরকার তথা বাণিজ্য মন্ত্রণালয় প্রয়োজনীয় সব ধরনের সহযোগিতা দিয়ে যাচ্ছে।’

ওয়ার্কশপের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিতি ছিলেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (রফতানি) এবং ইসিফোরজে প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক মো. হাফিজুর রহমান। বিষয়ের উপর কি-নোট পেপার উপস্থাপন করেন মো. মমিনুল আহসান।

এছাড়া অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ ফিনিস লেদার, লেদার গুডস অ্যান্ড ফুটওয়্যার এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন আহমেদ মাহিন, বাংলাদেশ ট্যানার্স অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান শাহীন আহমেদ এবং বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম-সচিব এবং বিজনেস প্রমোশন কাউন্সিলের সমন্বয়ক মো. আব্দুর রহিম উপস্থিত ছিলেন।

আনন্দবাজার/শহক

Print Friendly, PDF & Email

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *